চোখ ব্যথা দূর করার উপায়

275.00৳ 

সরাসরি কিনতে ফোন করুন: 01622913640

>> সারাদেশে ক্যাশ অন ডেলিভারি করা হয় !

>> ডেলিভারি খরচ ঢাকার মধ্যে ৬০ ঢাকার বাইরে  ১০০ টাকা !

>> প্রোডাক্ট হাতে পেয়ে চেক করে মূল্য পরিশোধ করতে পারবেন !

>> ডেলিভারি খরচ সাশ্রয় করতে একসাথে কয়েকটি প্রোডাক্ট অর্ডার করুন !

999 in stock

SKU: (28) চোখ ব্যথার ঔষধ (freshfil eye drop) ১ পিস Categories: , Tag:

Description

চোখ ব্যথা দূর করার উপায় চোখের পেশির ওপর বাড়তি চাপ নিয়ন্ত্রণ করতে গেলে ‘স্ক্রিন টাইম’ কমাতে হবে। কিন্তু যদি কারো পক্ষে তা করা সম্ভব না হয়, সে ক্ষেত্রে একমাত্র উপায় হলো নিয়মিত চোখের ব্যায়াম করা। দিনের যেকোনো সময়ে, কাজের ফাঁকে চোখের পাঁচটি ব্যায়াম করতে পারলেই উপকার মিলবে। আরো পড়ুন: ছেলেদের মেয়েদের কন -ডম গুপ্ত –  স্থান মেয়েদের পু -শি  কিনতে এখনই কিনুন

চোখ ব্যথা দূর করার উপায়

মাঝে মাঝে দেখা যায় হঠাৎ করেই চোখে ব্যাথা অনুভূত হয়। যে কোনো চোখের সমস্যাতে অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ নেওয়া উচিৎ, তবে চাইলে কিছু প্রাথমিক পন্থা অবলম্বন করে সাময়িকভাবে চোখের ব্যাথা নিরাময় করা সম্ভব।

 ঠাণ্ডা চামচ

বরফশীতল পানিতে চামচ ডুবিয়ে রেখে সেটা ঠাণ্ডা হলে চোখের উপর ধরে রাখলে চোখে আরাম অনুভূত হয়। চামচের ঠাণ্ডাভাব ফুরিয়ে গেলে চামচ পরিবর্তন করে নিতে হবে।

কান্না

কান্নাকাটি করেও চোখ ব্যথা সারানো যায়। চোখের পানি মূলত হালকা অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল এজেন্ট, যা চোখের ব্যকটেরিয়ার ধুয়ে ফেলতে সাহায্য করে। পাশাপাশি এটি চোখ আদ্র রাখে, ফলে চোখে ঘর্ষণের ফলে তৈরি ব্যথা কম হয়।

শসা

রূপচর্চার পাশাপাশি চোখের ব্যাথা নিরাময়েও শসা খুব উপকারী। শসা কেটে চোখের উপর দিয়ে রাখলে তা চোখের ব্যাথা নিরাময় করে।

ঠাণ্ডা পানি

কনজাংটাইভ বা চোখের সাদা অংশের প্রসারিত রক্তনালীগুলোর কারণে চোখ লাল হয়ে থাকে। ঠাণ্ডা পানির ঝাপটা দিয়ে চোখের এই যন্ত্রনাদায়ক রক্তনালীগুলো শিথিল করার মাধ্যমে লালভাব দূর হয়। এছাড়াও পরিষ্কার কাপড়ে বরফের টুকরা নিয়ে আক্রান্ত চোখে ব্যবহার করলেও উপকার পাওয়া যায়।

গোলাপ জল

একটি তুলার বল দিয়ে বন্ধ চোখে গোলাপ জল মাখানোর মাধ্যমে চোখ ব্যথার উপসর্গ থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।

চোখ ব্যথা দূর করার উপায় কি

চোখে ব্যথা হলে প্রাথমিক চিকিৎসা হিসেবে এসব পন্থা অবলম্বন করে সহজেই নিরাময় করা যায়। তবে সমস্যা বেশি হলে অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে। এছাড়া –

ঘনঘন চোখের পলক ফেলা :

চোখের সামনে এমন কোনো জিনিস অতর্কিতে এসে পড়লে আপনা থেকেই চোখের পলক পড়ে যায়। এই পলক ফেলার অভ্যাসও কিন্তু চোখের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ। কম্পিউটার বা মোবাইল থেকে বিচ্ছুরিত তীব্র আলো একভাবে চোখের ওপর এসে পড়লে সমস্যা হতেই পারে। এ সমস্যা থেকে সহজে মুক্তি পাওয়ার উপায় হলো বারবার চোখের পলক ফেলা।

চোখের মণি ঘোরানো :

একটানা চোখের কাজ করলে চোখের পেশির ওপর চাপ পড়া স্বাভাবিক। তাই কাজের ফাঁকে ফাঁকে চোখ বন্ধ করে, চোখের মণি গোল করে চোখের চারদিকে ঘোরান। একবার বাঁদিক থেকে ডানদিক, আবার ডানদিক থেকে বাঁদিকে ঘোরানো অভ্যাস করুন।

একটি রেখা বরাবর চোখের মণি ওপর-নিচ করা :

চোখের মণি গোল গোল করে ঘোরানোর মতোই এই ব্যায়াম করার সময়ে একটি সরলরেখা বরাবর চোখের মণি ওপর থেকে নিচে, নিচ থেকে ওপরে এবং বাঁদিক থেকে ডানদিকে আবার ডানদিক থেকে বাঁদিকে সঞ্চালন করতে হয়। চোখের পাতা বন্ধ করে এই ব্যায়াম অভ্যাস করলেও কিন্তু চোখের কষ্ট অনেকটাই কমে।

গরম সেঁক দেয়া :

চোখের ওপর গরম সেঁক দিলে অশ্রুগ্রন্থি থেকে জল বেরিয়ে আসে। চোখের পেশির চাপ নিয়ন্ত্রণ করতে এই পদ্ধতি অনেকটাই সাহায্য করে। চোখে ব্যথা নিয়ে ব্যায়াম করতে না পারলে গরম সেঁক দিয়ে আগে ব্যথা কমিয়ে নিন। তার পর হালকা ব্যায়াম করুন।

Reviews

There are no reviews yet.

Be the first to review “চোখ ব্যথা দূর করার উপায়”

Your email address will not be published. Required fields are marked *